দুধ সংরক্ষণের তিন টি উপায়

খামার ব্যবস্থাপনা গরু পালন ডেইরি ফার্মিং প্রাণিসম্পদ

দুধ সংরক্ষণের উপায়ঃ

দুধ আমদের দৈনন্দিন দিনের একটি অপরিহার্য খাদ্য যা ছোট থেকে বড় সবারই বেশ প্রিয়। অনেকে আছেন যারা দুধ সংরক্ষণ করার নিয়ম বা পদ্ধতি জানেন না। আসুন জেনে নেয়া যাক দুধ সংরক্ষণ কিভাবে করা যায়।

দুধ সংরক্ষণের ক্ষেত্রে তিনটি পদ্ধতি ব্যবহার করা হয়ে থাকে। এর মধ্যে কিছু বাড়িতে এবং কিছু পদ্ধতি আছে যা বাণিজ্যিক ভিত্তিতে ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

১. আগুনে ফুটিয়ে দুধ সংরক্ষণ করা যায়। দুধ ফুটালে দুধের জীবাণু এবং ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস হয়ে যায় এবং বেশ কয়েক ঘণ্টা সংরক্ষণ করা যায়।
২. পাস্তুরিত করে দুধ সংরক্ষণ করা যায়। এতে হালকা তাপে কিছুক্ষণ গরম করে সংরক্ষণ করা যায়।
৩. ইউএইচটি পদ্ধতিতে বাণিজ্যিক ভিত্তিতে দুধ সংরক্ষণ করা যায়।
৪. দুধে বরফের টুকরো দিয়ে এক জায়গা থেকে অন্য জায়গায় দুধ পরিবহনের জন্য সংরক্ষণ করা যায়।
৫. বাংলাদেশে ফ্রিজে দুধ সংরক্ষণ করাও একটি অন্যতম উপায়।

বিদ্রঃ এখানে বলে রাখা ভালো ফ্রিজে কি অবস্থায় দুধ রাখছেন তার উপর নির্ভর করবে যদি কঠিন হয় তাহলে এক্সপায়ার ডেট অনুসারে যতদিন ইচ্ছা রাখলেই হবে ,যা সাধারণত ডিপ ফ্রিজে রাখা হয় ! আর তরল অবস্থায় রাখলে ১ দিন পরেই সাধারণত নষ্ট হয়ে যায় (ছানা ছানার মত হয় !) ! আর এরজন্য এক চিমটে লবন দিয়ে রাখলেই হবে আরো বেশ কয়েকদিন তাহলে টিকে থাকে ! আর এর ফলে লবনের বাড়তি স্বাদ পাবার ও কোনো ভয় নেই ; বোঝা সম্ভব নয়।

Tagged

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *