বায়োফ্লকে ফ্লক তৈরির কার্যকর ২ টি উপায়। FCO কি? কিভাবে তৈরি করবেন?

বায়োফ্লক পদ্ধতিতে মাছ চাষ মাছ চাষ মৎস্যসম্পদ

লেখক:
কৃষিবিদ তৌহিদুল ইসলাম শাকিল
BSc(Fisheries), MS(Aqua Culture)
বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, ময়মনসিংহ।

কৌশল: ১
আমরা প্রথমে আমাদের ফিশ ট্যাংক টি জীবানুমুক্ত
করব চুন বা পটাশিয়াম পার ম্যাংগানেট বা ব্লিচিং পাউডার দিয়ে। এরপর ২ দিন রোদে শুকাবো। এরপর ট্যাংকের মোট ক্যাপাসিটির ৬০% মটরের পানি ঢুকাবো। এয়ারেশন চলবে ২ দিন। ৩ য় দিন পানির pH এবং TDS পরীক্ষা করুন। pH থাকতে হবে ৭-৮.৫ এবং TDS থাকতে হবে ৬০০-৭০০ এর মধ্যে। pH এবং TDS এর আলোচনা পর্বটি দেখুন কম বা বেশী হলে কি করবেন। ৪ র্থ দিন দুপুরে পানিতে প্রতি লিটারের জন্য ০.১৫ মিলি চিটাগুড় গুলিয়ে পানিতে দিন। ৪ র্থ দিন সন্ধায় ৫০০ গ্রাম চিটাগুড় এর সাথে প্রোবায়োটিক ( pona care/ biofav aqua / everfresh pro, aqualife s etc) ১০ gm/১০০০ লিটারের জন্য ভালো করে গুলিয়ে ফিশ ট্যাংকে ছিটিয়ে দিন। এর পর এরেশন হালকা ভাবে দিন এবং প্রতিদিন অল্প অল্প করে বাড়াতে থাকুন। প্রথমেই বেশী speed এ এরেশান দেয়া হলে পানির অসমোটিক পেশারে ব্যকটেরিয়ার সেল নষ্ট হয়ে যেতে পারে। ২/৩ দিন পর থেকে চিটাগুড় ০.০১ gm/ltr এর জন্য বায়োফ্লক এ দিতে থাকুন। ৭-১৫ দিন ফ্লক এর জন্য অপেক্ষা করুন।
ইনশাল্লাহ ফ্লক জেনারেশন হবেই। ফ্লক কিভাবে বুঝব তা পরে আলোচনায় আসবে ইনশাআল্লাহ।
কৌশল : ২
আমরা প্রথমে আমাদের ফিশ ট্যাংক টি জীবানুমুক্ত
করব চুন বা পটাশিয়াম পার ম্যাংগানেট বা ব্লিচিং পাউডার দিয়ে। এরপর ২ দিন রোদে শুকাবো। এরপর ট্যাংকের মোট ক্যাপাসিটির ৬০% মটরের পানি ঢুকাবো। এয়ারেশন চলবে ২ দিন। ৩ য় দিন পানির pH এবং TDS পরীক্ষা করুন। pH থাকতে হবে ৭-৮.৫ এবং TDS থাকতে হবে ৬০০-৭০০ এর মধ্যে। pH এবং TDS এর আলোচনা পর্বটি দেখুন কম বা বেশী হলে কি করবেন। ৪ র্থ দিন দুপুরে পানিতে প্রতি লিটারের জন্য ০.১৫ মিলি চিটাগুড় গুলিয়ে পানিতে দিন। ৪ র্থ দিন সন্ধায় FCO দিন ৫০০ মিলি প্রতি ১০০০ লিটারের জন্য। তাহলে এখন আসুন আমরা জানি FCO কি এবং কিভাবে তৈরি করতে হয়।
FCO: Fermented carbon organic অথবা এটাকে বলে বাংলায় প্রাকৃতিক গাজন প্রক্রিয়া। সহজ কথায় আমরা যে বাজারে প্যাকেটজাত প্রোবায়োটিক কিনি তা সুপ্ত অবস্থায় থাকে সেটিকে জীবন্ত বা কার্যকারী করার প্রক্রিয়ার নাম হল FCO. এ প্রক্রিয়ায় সবচেয়ে বড় সুবিধা হল আপনি প্রতিদিন আপনার ফ্লকে নতুন একটিভ ব্যাকটেরিয়া দিচ্ছেন ফলে এ্যমোনিয়া control এবং ফ্লক management টি একদম easy. আপনার ফ্লক সবসময় একরকম থাকবে এবং এ্যমোনিয়া গ্যাস control এ থাকবে। এটি একটি ব্যচ প্রক্রিয়া ৷ ১ মাসে জন্য করে তৈরি করবেন। তৈরির কৌশলটি হল ধরুন আপনি ১০০০০ লিটারের বায়োফ্লক এর জন্য ৩০ দিনের FCO তৈরি করবেন। এর জন্য ২০ লিটার মটরের পানি বালতি বা বড় পাতিল বা drum এ নিন। এবং ৫০০ gm আয়োডিন বিহীন লবণ দিন। ৫০০ gm চিটাগুড় গুলিয়ে পানিতে দিন। ১০০ gm প্রোবায়োটিক pond care/biofav aqua/everfresh pro ভালো ভাবে গুলোয়ে পানিতে দিন। ৭ দিন smoothly এরেশান দিন। ২/৩ দিন পর থেকে ৫০ gm করে চিটাগুড় বালতিতে দিন। brown কালার চলে আসবে। এভাবেই তৈরী হল আপনার FCO.
৪ র্থ দিন আপনি FCO দিয়েছেন বায়োফ্লকে এবং ৫ ম দিন আপনি মাছ ছেড়ে দিতে পারবেন। এর পর প্রতিদিন বায়োফ্লক ৫০০ মি.লি. করে FCO দিবেন। তাহলে ১০০০০ লিটারের বায়োফ্লক এর জন্য যে আপনি ২০ লিটার FCO তৈরি করলেন যা প্রথম ব্যবহার হল ৫ লিটার আর প্রতিদিন ব্যবহার হবে হাফ লিটার করে তাহলে এই ২০ লিটার FCO ১ মাস ব্যবহার করবেন। আর প্রতিদিন ফিড খাওয়ানোর হিসেব অনুযায়ী চিটাগুর দিতে হবে। এটা আমি পরে আলোচনা করুন। এভাবে আপনার ৫০০০ লিটারের জন্য, ১৫০০০, ২০০০০ লিটারের জন্যও তৈরি করবেন।

Tagged

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *