গবাদিপশুর ঘা বা ক্ষত নিরাময়ে ভেষজ চিকিৎসা

গবাদিপশুর ঘা বা ক্ষত নিরাময়ে ভেষজ চিকিৎসা

আজকে প্রাকৃতিক উপাদান দিয়ে কিভাবে খুব সহজে গরু ছাগলের চামড়াতে বিভিন্ন ধরনের ঘাঁ বা ইনফেকশন এবং উপরিভাগের ক্ষত সমূহের চিকিৎসা করা যায় সেই সম্পর্কিত একটি ভেষজ চিকিৎসা পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করবো।এই চিকিৎসা পদ্ধতিতে আমরা একটি ভেষজ মলম বা পেস্ট তৈরী করবো যাতে শুধু মাত্র ৩ টি উপাদান ব্যাবহার করা হবে। গবাদিপশুর ঘা বা ক্ষত নিরাময়ে […]

Continue Reading
দ্রুত গরু মোটাতাজাকরার সহজ উপায়

খামারের গরু সুস্থ আছে কিনা বোঝার ৮ টি উপায়

আমরা যারা গরু পালি বা গরুর খামার পরিচালনা করি তাদের একটা ব্যাপারে বিশেষ জ্ঞানের প্রয়োজন, বিশেষ করে নতুন খামারীদের। সেটা হল খামারে থাকা আপনার গরু বা গরুগুলির সুস্থতা যাচাই। এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটা বিষয়! সকালবেলা আপনি যখন গরুর গোয়ালঘর বা খামারে প্রবেশ করবেন তখন কিছু বিশেষ ব্যাপার গুলি লক্ষ্য করলেই আপনি প্রাথমিক ভাবে বুঝতে আপনার […]

Continue Reading
গরু ও বাছুরের ডায়রিয়া বা উদারাময়ের ভেষজ চিকিৎসা

গরু ও বাছুরের ডায়রিয়া বা উদারাময়ের ভেষজ চিকিৎসা

এই পোস্টে প্রাকৃতিক পদ্ধতিতে কিভাবে গরু ও বাছুরের ডায়রিয়া বা উদারাময়ের চিকিৎসা করা যায় সেটা নিয়ে আলোচনা করবো। গরু বা বাছুরের ডায়রিয়া বা উদারাময়ের চিকিৎসার জন্য আমাদের যে উপাদান গুলি নিতে হবে সে গুলি নীচে পর্যায়ক্রমে দেওয়া হল। উপাদান সমুহ এবং তৈরি করার পদ্ধতিঃ ১। ডালিম বা আনার অথবা বেদানার রস ২০০ মি:লি: বাচুরের ক্ষেত্রে […]

Continue Reading
এই গরমে খামারে নিজেই তৈরি করুন ইলেকট্রোলাইট

এই গরমে খামারে নিজেই তৈরি করুন ইলেকট্রোলাইট

তীব্র গরমে গরুকে অবশ্যই ইলেকট্রোলাইট দিন। শুধু গরু না হাঁস মুরগী, কোয়েল ,কবুতরকে ও ইলেকট্রোলাইট দিন। গরমে গরুর শরীর থেকে ইলেকট্রোড এর ইনব্যালেন্স হয়ে যায়। ষাড় গরু,গাভী বা বাচ্ছা গুলো হাঁপাতে থাকে। প্রয়োজনীয় ইলেকট্রোলাইট এর অভাবে গরুর মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে। নিচের তৈরি ফরমুলেশন অনুসারে ইলেক্ট্রোলাইট খাওয়ালে গরুর হজমের কোন প্রকার সমস্যা থাকবে না। “র […]

Continue Reading
গরুর খাদ্য তালিকায় সরিষার খৈল এর প্রয়োজনীয়তা

গরুর খাদ্য তালিকায় সরিষার খৈল এর প্রয়োজনীয়তা

প্রিয় পাঠক, আজ আপনাদের সাথে আলোচনা করা হবে গরুর খাদ্য তালিকায় সরিষার খৈল এর প্রয়োজনীয়তা।  উচ্চ মানের ক্রুড প্রোটিনের উপস্তিতির কারনে মাস্টার্ড অয়েল মিল বা সরিষা খৈল বিশ্বব্যাপী গরুর জন্য জনপ্রিয় খাদ্য উপাদান। তেলবীজ থেকে আহরিত প্রোটিন উৎসের মধ্যে গরুর জন্য খাদ্য উপাদান হিসাবে ব্যবহারের পরিমানের দিক থেকে সয়াবিন মিলের পরেই সরিষা খৈলের অবস্থান। উচ্চ […]

Continue Reading
গরু ছাগলের পক্স ও আঁচিল রোগের প্রাকৃতিক ভেষজ চিকিৎসা

গরু ছাগলের পক্স ও আঁচিল রোগের প্রাকৃতিক ভেষজ চিকিৎসা

প্রিয় খামারি বন্ধুরা, আজ আমি আলোচনা করব গরু ছাগলের পক্স ও আঁচিল রোগের প্রাকৃতিক ভেষজ চিকিৎসা নিয়ে। মুলত গরু ছাগলের পক্স ও আঁচিল ২ টি ভাইরাস ঘটিত রোগ। সাধারণত পক্স হলে গরু বা ছাগলের শরীরে দাগ পড়ে থাকে। ক্ষত হয়ে নানা জটিলটা তৈরি করে। অন্যদিকে, আঁচিল হলে তা ধীরে ধীরে শরীরে ছড়িয়ে পড়ে এবং আঁচিল […]

Continue Reading
গাভীর ম্যাস্টাইটিস বা ওলান ফোলা রোগে প্রাকৃতিক ভেষজ চিকিৎসা

গাভীর ওলান ফোলা রোগের প্রাকৃতিক ভেষজ চিকিৎসা

প্রিয় খামারি বন্ধুরা আজ আমি আলোচনা করব গাভীর ওলান ফোলা রোগের চিকিৎসা ভেষজ চিকিৎসা নিয়ে। গাভির ওলান ফোলা রোগ বা ম্যাস্টাইটিস রোগ হচ্ছে ডেইরি খামারিদের জন্য সবচেয়ে ভয়াবহ একটা রোগ। কেননা, এই ওলান ফোলা রোগে গাভীর দুধের বাট তথা ওলান নষ্ট হয়ে যায় এবং এতে খামারি চরমভাবে অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয়ে থাকেন। কারণ, ডেইরি খামারের অন্যতম […]

Continue Reading
গরুর ওজন নির্ণয়

গরুর ওজন নির্ণয় করার সহজ উপায়

গরুর ওজন নির্ণয় করার পদ্ধতি আসুন জেনে নিই কিভাবে আপনি আপনার গরুর ওজন নির্ণয় করতে পারেন খুব সহজেই। গরুর আনুমানিক ওজন বের করতে / গরুর ওজন নির্ণয় করতে আপনার প্রয়োজনীয় উপকরন যা যা লাগবে: ১. গজ/ফিতা২. ক্যালকুলেটর জি এই দুইটা জিনিষ থাকলেই আপনি বের করে নিতে পারবেন আপনার গরুটির আনুমানিক ওজন কত। গরুর ওজন নির্ণয়ের […]

Continue Reading
গরুর খাদ্য হিসেবে সজিনা পাতার ব্যতিক্রমী ব্যবহার

গরুর খাদ্য হিসেবে সজিনা পাতার ব্যতিক্রমী ব্যবহার

প্রিয় পাঠক, আজ আমি জানাব গরুর খাদ্য হিসেবে সজিনা পাতার ব্যতিক্রমী ব্যবহার নিয়ে। সজিনা গাছকে বলা হয়ে থাকে “অলৌকিক গাছ” “জাদুকরী গাছ” আর সজিনাকে বলা হয় সুপার ফুড। হাজারো পুষ্টি গুণে ভরপুর এই সজনে গাছের ব্যবহার শুধু আমাদের মানব জাতীর জন্যই সীমাবদ্ধ নয়। গবাদি পশু-পাখির খাদ্য হিসেবে ও বেশ উপকারী এই সজনে গাছের বিভিন্ন অংশ। […]

Continue Reading

যেকোনো খামারের সেড পরিষ্কার ও জীবাণুমুক্ত করার উপায়

যেকোনো খামারে “অল ইন অল আউট” সিস্টেম অনুসরণ করতে হবে। “অল ইন অল আউট” মানে হচ্ছে খামারের একসাথে বাচ্চা তোলা এবং সেই বাচ্চা একসাথেই বিক্রি করে দেয়া। অর্থাৎ বিভিন্ন বয়সী বাচ্চা খামারে না রাখাই ভাল। খামারে একটা ব্যাচ পালন করে বিক্রি করার পরে কমপক্ষে ১৪ দিন গ্যাপ দিয়ে তারপরে নতুন বাচ্চা তুলতে হবে। এতে শুধু […]

Continue Reading